ঢাকা, ২৮ জুলাই ২০২১, বুধবার

সমঝোতায় পরিবর্তন মানব না, নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করতে হবে

Facebook
WhatsApp
Twitter
Google+
Pinterest
জাভেদ জারিফ

পরমাণু সমঝোতা থেকে আমেরিকা অন্যায়ভাবে বেরিয়ে যাওয়ার পর ইরানের ‘তিক্ত অভিজ্ঞতা’ হয়েছে এবং এই অভিজ্ঞতার পুনরাবৃত্তি এড়াতে চায় তেহরান। সমঝোতাটি পুনরুজ্জীবনের লক্ষ্যে অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায় যে ম্যারাথন আলোচনা চলছে তাতে সাফল্য আসবে বলেও আশা প্রকাশ করেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোহাম্মাদ জাওয়াদ জারিফ দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করে বলেছেন, ২০১৫ সালে তার দেশ ছয় বিশ্বশক্তির সঙ্গে যে পরমাণু সমঝোতা সই করেছিল তাতে পরিবর্তন আনার লক্ষ্যে কোনো আলোচনা মেনে নেয়া হবে না।

তিনি বলেছেন, ওই সমঝোতা পুনরুজ্জীবিত করতে চাইলে ইরানের ওপর আমেরিকার পক্ষ থেকে আরোপিত সব নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করতে হবে।

তুরস্কে অনুষ্ঠিত আনতালিয়া কূটনৈতিক ফোরামের বৈঠকের অবকাশে ইউরোপীয় ইউনিয়নের পররাষ্ট্রনীতি বিষয়ক প্রধান কর্মকর্তা জোসেপ বোরেলের সঙ্গে এক বৈঠকে ইরানের এই স্পষ্ট অবস্থানের কথা জানিয়ে দেন জারিফ।

তিনি বলেন, পরমাণু সমঝোতা থেকে আমেরিকা অন্যায়ভাবে বেরিয়ে যাওয়ার পর ইরানের ‘তিক্ত অভিজ্ঞতা’ হয়েছে এবং এই অভিজ্ঞতার পুনরাবৃত্তি এড়াতে চায় তেহরান। সমঝোতাটি পুনরুজ্জীবনের লক্ষ্যে অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায় যে ম্যারাথন আলোচনা চলছে তাতে সাফল্য আসবে বলেও আশা প্রকাশ করেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

২০১৫ সালে স্বাক্ষরিত পরমাণু সমঝোতাকে আবার আগের অবস্থায় সক্রিয় করার জন্য অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায় বর্তমানে ইউরোপীয় দেশগুলোর সঙ্গে ইরানের সংলাপ চলছে। ‘সর্বোচ্চ চাপ’ প্রয়োগের নীতি অনুসরণ করে সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ২০১৮ সালের মে মাসে পরমাণু সমঝোতা থেকে আমেরিকাকে বের করে নেন।

এক বছর পর্যন্ত ইরান এই সমঝোতা বাস্তবায়নে সম্পূর্ণ প্রতিশ্রুতিবদ্ধ ছিল কিন্তু অন্য পক্ষগুলো সমঝোতা বাস্তবায়ন না করায় ৩৬ অনুচ্ছেদ অনুসারে ইরান সমঝোতার বেশকিছু ধারা বাস্তবায়ন স্থগিত করে দেয়।

বর্তমান মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন তার দেশকে এই সমঝোতায় ফিরিয়ে আনার আগ্রহ প্রকাশ করলেও তিনি ইরানকে আগে তার প্রতিশ্রুতিতে পুরোপুরি ফিরে যাওয়ার আহ্বান জানাচ্ছেন।

কিন্তু ইরান বলেছে, আমেরিকা আগে এই সমঝোতা থেকে বেরিয়ে গেছে বলে তাকে আগে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে এতে ফিরে আসতে হবে। ইরান ও আমেরিকার মধ্যকার মতপার্থক্যের এই জায়গাটি নিয়ে মূলত ভিয়েনায় ধারাবাহিক সংলাপ চলছে।

সূত্র : পার্সটুডে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *